Find us on

৬০০ কোটি টাকা অগ্রিম, কেরলের বন্যা প্রসঙ্গে জানাল কেন্দ্র
দেশ

তিরুবনন্তপুরম, ২৪ অগাস্টঃ ৬০০ কোটি টাকা শুধুমাত্র অগ্রিম সাহায্য হিসেবে দেওয়া হচ্ছে কেরলকে, জানাল কেন্দ্র। আরও জানানো হয়েছে, বন্যা কবলিত এলাকায় ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ খতিয়ে দেখে এনডিআরএফ-এর তরফেও বরাদ্দ করা হবে অর্থ। কেন্দ্রের তরফে এক প্রেস বিবৃতিতে জানানো হয়, জরুরি ভিত্তিতে কেরালায় সাহায্য এবং ত্রাণ সামগ্রী পাঠানো হয়েছে। পরিস্থিতির দিকে প্রতিদিন নজর রাখছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

যে কোনও বিপর্যয়ে উদ্ধার এবং ত্রাণসামগ্রীর বাবদ আর্থিক সহায়তার বিষয়টি দেখে রাজ্য বিপর্যয় মোকাবিলা তহবিল(এসডিআরএফ) এবং জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলা তহবিল(এনডিআরএফ)। প্রতিটি রাজ্যে বিপর্যয় মোকাবিলা তহবিল রয়েছে। যেখানে জেনারাল ক্যাটেগরিতে ৭৫ শতাংশ বরাদ্দ থাকে কেন্দ্রের। বিশেষ ক্যাটেগরিতে পাহাড়ি অঞ্চলকে দেওয়া হয় ৯০ শতাংশ।

গাইডলাইন অনুযায়ী, কেন্দ্র প্রতিটি রাজ্যে এসডিআরএফ-এ দু ধাপে অগ্রিম টাকা দেয়। কোনো প্রাকৃতিক বিপর্যয় হলে এসডিআরএফ থেকে টাকা খরচ করে রাজ্য। কিন্তু, ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ ব্যাপক হলে দ্রুত সাহায্য পেতে প্রতিটি ক্ষেত্রে হিসাব করে কেন্দ্রের কাছে তার রিপোর্ট জমা দেওয়া

কেরলের বন্যায় কেন্দ্রের তরফে চালানো হয় বড়সড় উদ্ধারকাজ। ৪০টি হেলিকপ্টার, ৩১টি বিমান, ১৮৪ উদ্ধারকারী দল, ৫০০ নৌকো, প্রতিরক্ষাবাহিনীর ১৮টি মেডিকেল টিম, এনডিআরএফ-এর ৫৮টি দল, সিএপিএফ-এর সাত বাহিনী পরিস্থিতির মোকাবিলায় নামে। উদ্ধার করা হয় প্রায় ৬০ হাজার মানুষকে। এছাড়াও নৌবাহিনী এবং উপকূলরক্ষী বাহিনীর বেশকিছু জাহাজকে কেরালায় বন্যা ত্রাণ পাঠানোর কাজে লাগানো হয়। মৃত্যু হয় প্রায় ৩৭০ জনের। ক্ষয়ক্ষতি হয় প্রায় ১৯,৫১২ কোটি টাকার।

৬০০ কোটি টাকা অগ্রিম, কেরলের বন্যা প্রসঙ্গে জানাল কেন্দ্র

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *