Find us on

অ্যাম্বুলেন্স লক্ষ্য করে গুলি ইসলামপুরে 
উত্তর দিনাজপুর
উত্তরবঙ্গ
শিরোনাম

ইসলামপুর, ১৭ মেঃ ভোট গণনাকে কেন্দ্র করে বৃহস্পতিবার রণক্ষেত্রের চেহারা নেয় চোপড়া। অ্যাম্বুলেন্সের ওপর হামলা চালানোর অভিযোগ উঠল জাতীয় সড়ক অবরোধকারীদের বিরুদ্ধে। অ্যাম্বুলেন্স লক্ষ্য করে চালানো হয় গুলি। ছোড়া হয় পাথর। গুলি লক্ষ্যভ্রষ্ট হলেও পাথরের আঘাতে আহত হন চারজন।

জানা গিয়েছে, শিলিগুড়ির একটি বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ইসলামপুরের আলি হোসেনের ছেলে সাজ্জাদ। আজ রক্ত দেওয়ার জন্য প্রতিবেশী পাঁচ যুবককে নিয়ে অ্যাম্বুলেন্সে করে শিলিগুড়ি যাচ্ছিলেন তিনি। কিন্তু চোপরায় ঢোকার মুহূর্তে অ্যাম্বুলেন্সটি আটকায় বিক্ষোভকারীরা। পুরো বিষয়টি খতিয়ে দেখার আশ্বাস দিয়েছে পুলিশ।

অ্যাম্বুলেন্সে হামলাকারীদের দাবি, শাসকদল ভোটের সময় অ্যাম্বুলেন্সে করে অস্ত্র যোগান দিচ্ছে। অভিযোগ, এই অ্যাম্বুলেন্সের আগে যাওয়া একটি অ্যাম্বুলেন্স তাদের ওপর গুলি চালায়। তাই প্রত্যেক গাড়িতেই চলছিল তল্লাশি। অ্যাম্বুলেন্সটিকে থামতে বলায় তা না মানলে গুলি চালানো হয় বলে দাবি বিক্ষোভকারীদের।

এদিকে বিরোধীদের অভিযোগ, গণনাকেন্দ্রে ঢোকার আগে তাদের বাস লক্ষ্য করে ব্যাপক গুলি চালায় শাসকদলের দুষ্কৃতীরা। এদের মধ্যে একজন গুলির আঘাতে গুরুতর জখম হয়েছেন। বাসের ভাঙা কাঁচের টুকরোর আঘাতে জখম হয়েছেন বেশ কয়েকজন। এর প্রতিবাদে বিরোধীরা তিন ঘন্টা ৩১ নম্বর জাতীয় সড়ক অবরোধ করেন। জাতীয় সড়কে চলে ব্যাপক তান্ডব। চোপড়া বিডিও অফিসে ঢুকে একদল দুষ্কৃতী ব্যাপক বোমাবাজি চালায়। জাতীয় সড়কের মাঝে টায়ার জ্বালিয়ে পরিস্থিতি আরও উত্তপ্ত করে তোলা হয়। গণনাকেন্দ্র সংলগ্ন হাতিঘিসা মোড় দুষ্কৃতীদের দখলে থাকায় এলাকায় সংবাদমাধ্যমকেও ঢুকতে বাধা দেওয়া হয়। অবরোধ তোলার সময় পুলিশকে লক্ষ্য করে ঢিল ছোড়া হয়।

তথ্য ও ছবিঃ অরুন ঝা

অ্যাম্বুলেন্স লক্ষ্য করে গুলি ইসলামপুরে 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *