শুক্রবার, জুলাই ২৮, ২০১৭


Find us on

প্রসূতি মৃত্যুকে কেন্দ্র করে উত্তেজনা রায়গঞ্জ জেলা হাসপাতালে

রায়গঞ্জ, ১৫ জুলাইঃ এক অন্তঃসত্ত্বা মহিলার মৃত্যুকে ঘিরে উত্তেজনা রায়গঞ্জ জেলা হাসপাতালে। মৃতা যমুনা মল্লিক (৩০) শিল্পীনগর এলাকার বাসিন্দা, পেশায় টোটোচালক মনোরঞ্জন মল্লিকের স্ত্রী। পরিবারের দাবি, ভুল চিকিৎসার ফলে মৃত্যু হয়েছে যমুনার। ঘটনাকে ঘিরে রায়গঞ্জ জেলা হাসপাতাল ক‍্যাম্পাসে বিক্ষোভ দেখা দিলে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। বিষয়টি খতিয়ে দেখার আশ্বাস দিয়েছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

শুক্রবার বিকেলে যমুনা দেবীর প্রসব যন্ত্রণা শুরু হলে তাঁকে রায়গঞ্জ জেলা হাসপাতালে নিয়ে আসা হলেও ওয়ার্ডে কোনো চিকিৎসক দেখেনি বলে অভিযোগ মনোরঞ্জনবাবুর। এরপর স্থানীয় কাউন্সিলরের তত্পরতায় রাত এগারোটার সময় অপারেশন থিয়েটারে নিয়ে যাওয়া হয় যমুনাদেবীকে। অভিযোগ, অ্যানেসথেশিয়া দেওয়ার পর থেকেই ঝিমোতে শুরু করেন যমুনাদেবী। এরপর আর জ্ঞান ফেরেনি তাঁর। এরপর অপারেশন থিয়েটার থেকে দুই ডাক্তার অরিজিৎ জানা ও দ্বীপ সরকার বেরিয়ে যেতেই সন্দেহ হয় পরিবারের।

এদিন সকালে মৃত্যুর খবর চাউর হতেই হাসপাতাল চত্বরে দিনভর চলে বিক্ষোভ। রায়গঞ্জ থানার পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এব‍্যাপারে রায়গঞ্জ জেলা হাসপাতাল সুপার গৌতম কুমার মন্ডল জানান, চিকিৎসার কোনো গাফিলতি হয়নি। মৃতের পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ আসার পরই বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে। কোনো চিকিৎসকের দোষ প্রমাণ হলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।