Saturday, June 22, 2024
Homeরাজ্যউত্তরবঙ্গSiliguri Water Crisis | ট্যাংকের জলেও সন্দেহ, ভরসা রাখতে পারছেন না শহরবাসী

Siliguri Water Crisis | ট্যাংকের জলেও সন্দেহ, ভরসা রাখতে পারছেন না শহরবাসী

ভাস্কর বাগচী, শিলিগুড়ি: শুক্রবার সকালে পানীয় জলের পাউচ সরবরাহের তদারকি করছিলেন শিলিগুড়ি পুরনিগমের ১৬ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলার সুজয় ঘটক। স্থানীয় অরুণোদয় ক্লাবের সামনে তখন ট্যাংক থেকে জল ভরছিলেন ওয়ার্ডের কয়েকজন নাগরিক। হঠাৎই ওয়ার্ডের এক নাগরিককে জারভর্তি জল নিয়ে বাড়িতে ঢুকতে দেখে সুজয়ের প্রশ্ন, ‘জল কেন কিনে আনলেন? জল তো দেওয়া হচ্ছে পুরনিগম থেকেই।’ কাউন্সিলারের প্রশ্নে মুচকি হেসে ওই নাগরিকের উত্তর, ‘দাদা, কী জল যে ট্যাংকে আছে, কে জানে? তাই আর রিস্ক নিলাম না। ৫০ টাকা দিয়ে জার কিনে আনলাম।’

পাশ দিয়ে একটি বিলাসবহুল গাড়িতে চেপে যাচ্ছিলেন ওয়ার্ডের কয়েকজন। গাড়ির পিছনের সিটের কাছে দেখা গেল একটি জলভর্তি জার। পরপর এই দৃশ্য দেখে সুজয়ের প্রতিক্রিয়া, ‘পুরনিগমের জলের উপর মানুষ আর ভরসা করতে পারছেন না।’

সুজয়ের কথাটা যে অনেকটাই বাস্তব তা শহরের কয়েকটি ওয়ার্ডে গিয়ে পরিষ্কার হল। শহরের ১৪, ১৫, ১৭ সহ বেশ কিছু ওয়ার্ডে পানীয় জলের ট্যাংক থাকলেও সেখানে ভিড় লক্ষ করা যায়নি। অনেকেই বলছেন, ‘যা হল, তারপর আর এই ট্যাংকের জলের উপর ভরসা করতে পারছি না।’

১৫ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা বাসন্তী সরকারকে দেখা গেল রিকশায় চেপে পাকুড়তলা মোড় থেকে হাকিমপাড়ার বাড়ির দিকে যেতে। রিকশায় দুটো জলের জার রাখা। প্রশ্ন করতেই বললেন, ‘এভাবে কতদিন জল কিনে খেতে হবে জানি না।’ কিন্তু ওয়ার্ডে তো জলের ট্যাংক রয়েছে। তবু কেন অত টাকা দিয়ে জল আনলেন? বাসন্তীর জবাব, ‘ক’টা দিন যাক। এখনই ওই জল খাব না। তেমন প্রয়োজন হলে তো খেতেই হবে। যতদিন না খেয়ে থাকা যায়।’

১৫ নম্বর ওয়ার্ড থেকে একটু এগিয়ে পুরনিগমের ২১ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলারের অফিসের সামনে জলের ট্যাংক রাখা হয়েছিল। সেই ট্যাংকের জল নিতে ব্যস্ত ছিলেন অনেকেই। কিন্তু নিজেদের মধ্যে আলোচনার একটাই বিষয় ছিল, ‘নিয়ে তো যাচ্ছি, জল ভালো তো?’

কলেজপাড়াতেও প্রচুর পরিমাণে পানীয় জল সরবরাহের জন্য রাখা  হয়েছে। কিন্তু অন্য বেশ কয়েকটি ওয়ার্ডের মতো এখানেও জলের হাহাকার চোখে পড়ল না। যার প্রয়োজন তিনি জল নিচ্ছেন ঠিকই। কিন্তু অনেকেই এড়িয়ে গিয়েছেন। কেউ লাইনে দাঁড়ানোর লজ্জায়, কেউ সন্দেহে। কলেজপাড়ায় ভাড়া নিয়ে থাকেন সুব্রত মহন্ত। এদিন সকালের মতো বিকেলের দিকেও ছুটলেন পাকুড়তলা মোড় থেকে জল আনতে। তাঁর কথায়, ‘শুধু তো আর খাওয়া নয়, রান্নাও তো এই জলেই হচ্ছে। তাই প্রতিবেলায় এক জার করে জল লাগছে। দেখা যাক কতদিন পারি।’

পুরনিগম জল সরবরাহ করলেও মানুষের সেই আগের মতো ভরসা ফেরাতে পারেনি। ফলে ট্যাংকের জলের উপরও বিশ্বাস করতে পারছেন না অনেকেই। বাঘা যতীন পার্ক এলাকার মালতী চক্রবর্তী যেমন বললেন, ‘জল নিয়ে যা হচ্ছে, তারপর আর ভরসা নেই। ক’টা দিনেরই তো ব্যাপার, জল কিনেই খাচ্ছি।’

সাধারণ মানুষের বিশ্বাসটা ফেরানো যে কঠিন, তা আঁচ করতে পারছেন বিরোধী কাউন্সিলাররাও। সিপিএম কাউন্সিলার তথা জল সরবরাহ বিভাগের প্রাক্তন মেয়র পরিষদের সদস্য শরদিন্দু চক্রবর্তীর কথায়, ‘মানুষের মধ্যে আতঙ্ক এখনও কাটেনি। অনেকে ভাবছেন, ট্যাংক থেকে যে জল দেওয়া হচ্ছে সেটা আবার রিজার্ভারের জল নয় তো? মানুষের কিন্তু এই আতঙ্ক কাটতে সময় লাগবে।’

যদিও মেয়র গৌতম দেব পরিষ্কার জানিয়ে দিয়েছেন, ট্যাংকে করে যে জল সরবরাহ করা হচ্ছে তা ডিপ টিউবওয়েলের জল। এই জল ইতিমধ্যে বহু জায়গায় সরবরাহ করা হয়েছে। তাই মানুষ নিশ্চিন্তে এই জল ব্যবহার করতে পারেন।

Sucharita Chanda
Sucharita Chandahttps://uttarbangasambad.com/
Sucharita Chanda is working as Sub Editor Since 2020. Presently she is attached with Uttarbanga Sambad. She is involved in Copy Editing, Uploading in website and various social media platforms.
RELATED ARTICLES
- Advertisment -
- Advertisment -spot_img

LATEST POSTS

NDRF | ফিবছরই বন্যায় ভাসে মালদা জেলার একাংশ, পরিস্থিতি মোকাবিলায় প্রশিক্ষণ এনডিআরএফের   

0
গাজোলঃ বন্যায় জলমগ্ন এলাকা থেকে সাধারণ মানুষকে উদ্ধার করার জন্য লাইফ জ্যাকেট না থাকলে কী করবেন? হঠাৎ করে কেউ দুর্ঘটনাগ্রস্ত হলে রক্তক্ষরণ বন্ধ বা...

Kishanganj | গাড়ির ডিকি খুলতেই রাশি রাশি ৫০০ টাকার নোট! কিশনগঞ্জে উদ্ধার ৪৭ লক্ষ...

0
কিশনগঞ্জঃ বিলাসবহুল গাড়িতে লক্ষ লক্ষ টাকা নিয়ে শিলিগুড়ি আসার পথে কিশনগঞ্জে পুলিশের হাতে ধরা পড়ল তিন যুবক। শুক্রবার দুপুরে টাকা উদ্ধার হয় কিশনগঞ্জের কাছে...

CSIR-UGC-NET | অনির্দিষ্টকালের জন্য স্থগিত সিএসআইআর-ইউজিসি-নেট, কী কারণ জানালো এনটিএ?

0
উত্তরবঙ্গ সংবাদ ডিজিটাল ডেস্ক : একদিকে নিট পরীক্ষা নিয়ে বিতর্ক, অন্য দিকে ইউজিসি নেট পরীক্ষা বাতিল নিয়ে গোটা দেশ উত্তাল। তারই মাঝে অনির্দিষ্টকালের জন্য...

Patiram | তৃণমূল কার্যালয়ে নাবালককে বিয়ে দেওয়ার চেষ্টা! শোরগোল এলাকায়

0
পতিরাম: প্রেমের সম্পর্কে জড়িয়ে পড়ায় বোল্লা তৃণমূল পার্টি অফিসে সালিশি সভায় ডেকে নাবালককে(Minor) বিয়ে দেওয়ার চেষ্টার অভিযোগ উঠল তৃণমূল সংখ্যালঘু সেলের জেলার নেতার বিরুদ্ধে।...

Grasmore tea garden | বকেয়া মজুরির দাবিতে এককাট্টা তৃণমূল-বিজেপি, গ্রাসমোড় চা বাগানে বিক্ষোভ শ্রমিকদের...

0
নাগরাকাটাঃ বকেয়া মজুরির দাবিতে তুমুল বিক্ষোভ দেখালেন গ্রাসমোড় চা বাগানের শ্রমিকরা। শুক্রবার সকালে বাগানের অফিসের সামনে জমায়েত হয়ে তৃণমূল কংগ্রেস ও বিজেপি দুই দলেরই...

Most Popular