Find us on

হাসপাতাল থেকে শিশু বদল
উত্তর দিনাজপুর
উত্তরবঙ্গ
শিরোনাম

রায়গঞ্জ ১০ জুনঃ রায়গঞ্জ জেলা হাসপাতাল থেকে শিশু বদলের  ঘটনায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়াল হাসপাতাল চত্বরে। রবিবার রাত আটটা নাগাদ রায়গঞ্জ থানায় এব্যাপারে অভিযোগ দায়ের করেন মৃত শিশুর কাকা আনসার আলি। তাঁর অভিযোগ গত বুধবার তাঁর বৌদি সাবানা খাতুন পুত্র সন্তানের জন্ম দেন। এদিন সকালে ওই  শিশুর শ্বাসকষ্ট হওয়ায় তাকে ভরতি করা হয় এসএনসিইউ বিভাগে। এরপর বিকালে হাসপাতালে কর্তৃপক্ষ জানায়, শিশুটি মারা গিয়েছে। এরপর সাবানা খাতুনের পরিবার মৃত শিশুটিকে দেখতে চাইলে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তা দেখাতে পারেনি। এরপরই রায়গঞ্জ থানার দ্বারস্থ হয় সাবানা খাতুনের দেওর আনসার আলি। তাঁর অভিযোগের ভিত্তিতে রাত সাড়ে আটটা নাগাদ হাসপাতালে তদন্ত করতে আসে রায়গঞ্জ থানার পুলিশ। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তাদের ভুল স্বিকার করে জানায়, ওই একই দিনে করণদিঘি থানার বরিয়া গ্রামের বাসিন্দা সাবিনা খাতুন প্রসব যন্ত্রণা নিয়ে রায়গঞ্জ জেলা হাসপাতালে ভরতি হয়। সেদিন রাতেই পুত্র সন্তানের জন্ম দেন তিনি। ওই শিশুটিও শ্বাসকষ্টে ভোগায় এসএনসিইউ বিভাগে নিয়ে যাওয়া হয়। ওই দুই পুত্র সন্তানকে রাখা হয় পাশাপাশি। তাদের মধ্যে এক শিশুর মৃত্যু হয়। ভুল করে মৃত শিশুটিকে দিয়ে দেওয়া হয় সাবিনা খাতুনের পরিবারকে। রায়গঞ্জ থানার আইসি সুমন্ত বিশ্বাস বলেন, হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলা হয়েছে। এসএনসিইউ বিভাগে কর্তব্যরত চিকিৎসকের সঙ্গেও কথা বলা হয়েছে। যে মৃত শিশুটি সাবিনা খাতুনের স্বামী কুতুব আলি নিয়ে গিয়েছেন সেই শিশুটি তাঁদের নয়। তাঁদের শিশু এসএনসিইউ বিভাগে ভরতি রয়েছে। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের গাফিলতির জন্য এই ঘটনাটি ঘটে।

সংবাদদাতাঃ বিশ্বজিৎ সরকার

হাসপাতাল থেকে শিশু বদল

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *