Find us on

আদিত্যকে নিয়ে বিষ্ফোরক মন্তব্য অভিনেত্রীর
সিনেমা ও বিনোদন

মুম্বই, ১১ সেপ্টেম্বরঃ হঠাত্ই নিজের পুরনো শারীরিকভাবে হেনস্থার কথা তুলে কঙ্গনা রানাউত প্রকাশ্যে নিয়ে এলেন হেনস্থাকারীর নাম। নিজের জীবনের প্রসঙ্গে কোন গোপনীয়তা তিনি কোনদিনই রাখেননি। মাত্র ১৭ বছর বয়সে তিনি নাকি বাবার বয়সি আদিত্য পাঞ্চোলির দ্বারা শারীরিক হেনস্থার স্বীকার হন। কঙ্গনার বয়স নাকি তখন এতই কম ছিল যে নিজের বাবা মাকেও তিনি ওই ঘটনার কথা জানাতে পারেননি।

কঙ্গনার অভিযোগ, তিনি আদিত্য পাঞ্চোলির স্ত্রী জারিনা ওয়াহাবের কাছে এই বিষয়টি জানিয়েছিলেন, কিন্তু তা সত্বেও আদিত্যর স্ত্রী তাঁকে কোনওভাবেই সাহায্য করার চেষ্টা করেননি। এই বিষয়ে আদিত্য বা তাঁর স্ত্রী কেউই কোনও মন্তব্য করতে চাননি। এরপর বাধ্য হয়ে কঙ্গনা পুলিশের সাহায্য চেয়েছিলেন। সে সময় শুধুমাত্র সতর্ক করেই নাকি আদিত্যকে ছেড়ে দেয় পুলিশ।

একটি সাক্ষাত্কারে কঙ্গনা বলেন, ‘আমার বয়স তখন মাত্র ১৭। একজন বাবার বয়সি লোকের কাছে আমায় হেনস্থার স্বীকার হতে হয়েছিল, কিন্তু কোনভাবেই এই ঘটনার সঙ্গে ইন্ডাস্ট্রি জড়িত নয়।’

অন্যদিকে, আদিত্য পাঞ্চোলি জানিয়েছেন, তাঁর সঙ্গে লিভ ইন করতে এসেছিলেন কঙ্গনা। প্রথমে জোর করে কঙ্গনাই তাঁর সঙ্গে দেখা করতেন। কঙ্গনার পিছনে তিনি অনেক টাকা খরচ করেছেন। বিচ্ছেদের পরও টাকা দিয়ে গেছেন কঙ্গনাকে। তবে তার পালটা নাকি আদিত্যের কপালে জুটেছে দুর্ব্যবহার। এরপর কঙ্গনাকে মানসিক রোগী বলে আখ্যা দিয়ে, আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার হুমকি দেন আদিত্য।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *